306962

গত ৪০ বছর ধরেই আমার ওজন ৬২ কেজি : মাহাথির

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ মাহাথির মোহাম্মদকে বলা হয় আধুনিক মালয়েশিয়ার স্থপতি। বিশ্বের সবচেয়ে বয়স্ক রাজনীতিবিদ মাহাথির বর্তমানে মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। বয়স ৯৪ বছর হলেও বার্ধক্য তাকে গ্রাস করতে পারেনি। তার কাজে কর্মে এখনও রয়েছে তারুণ্যের ছাপ।

তবে ক্ষমতা থেকে সরে দাঁড়িয়ে জোটের অন্যতম নেতা আনোয়ার ইব্রাহিমের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তরের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন বিশ্বের সবচেয়ে প্রবীণ এই প্রধানমন্ত্রী। আগামী বছরের নভেম্বরের আগে তিনি সরছেন না বলে সাফ জানিয়েছেন। মঙ্গলবার বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি এ কথা জানিয়েছেন।

৯৪ বছরের মাহাথির সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, আগামী বছরের নভেম্বরে এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় অর্থনৈতিক সহযোগিতা (অ্যাপেক) সম্মেলন মালয়েশিয়ায় অনুষ্ঠিত হবে। সম্মেলনের পর তিনি সরে যাওয়ার প্রস্তুতি নেবেন। তিনি বলেন,‘আমি হস্তান্তরের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলাম এবং আমি তা রাখব। আমি এটা মেনে নিচ্ছি যে অ্যাপেক সম্মেলনের আগে কোনো পরিবর্তন হলে সেটি হবে ঐক্যনাশক বলে ভেবেছিলাম’।

মাহাথির বলেন, ‘আমার পরিকল্পনা অনুযায়ী, আমি পদত্যাগ করছি এবং আমি তার কাছে দণ্ড হস্তান্তর করছি। জনগণ যদি তাকে না চায় সেটা তাদের ব্যাপার। তবে আমি আমার দেওয়া প্রতিশ্রুতির অংশ পূরণ করব…অভিযোগ যাই হোক না কেন। আমি প্রতিশ্রুতি দিয়েছি, আমি প্রতিশ্রুতি রাখব’।

আগামী বছরের ডিসেম্বরের দিকে দায়িত্ব হস্তান্তর করবেন কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘সময় আসলে তখন দেখা যাবে’। নিজ সুস্বাস্থ্যের রহস্য সম্পর্কে সম্প্রতি বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে খোলামেলা আলোচনা করেছেন মাহাথির। তিনি জানিয়েছেন, কাজের প্রতি ভালোবাসা আর স্বাস্থ্য সচেতনতাই তার সুস্বাস্থ্যের মূল রহস্য।

৯৪ বছরেও এতোটা কর্মক্ষম কীভাবে জানতে চাইলে মাহাথির বলেন, ‘আমি হালকা কিছু ব্যায়াম করি। তবে প্রধানত আমি আমার শরীরের ওজন স্থিতিশীল রাখার চেষ্টা করি।’ মালয়েশিয়ার ক্যারিশম্যাটিক নেতা আরও বলেন, গত ৩০-৪০ বছর ধরেই আমার শরীরের ওজন ৬২ কেজিতে স্থিতিশীল রয়েছে। এটি কখনও বদলায়নি।’

খাবারের ব্যাপারেও মাহাথির বেশ সচেতন। মজাদার খাবারের লোভে কখনো মাত্রাতিরিক্ত খাওয়া দাওয়া করে না তিনি। এ ব্যাপারে মাহাথির বলেন, ‘আমি খুব একটা খাওয়া দাওয়া করি না। খুব সুস্বাদু খাবার হলেও আমি খাই না। আমি মাত্রাতিরিক্ত খাবার থেকেও বিরত থাকি।’ এসব কারণেই মাহাথির এই বয়সেও তারুণ্য ধরে রাখতে সক্ষম হয়েছেন, গড়ে প্রতিদিন কাজ করছেন ১৮ ঘণ্টা করে।

উল্লেখ্য, ১৯৮১ থেকে ২০০৩ সাল পর্যন্ত টানা ২২ বছর মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী ছিলেন মাহাথির মোহাম্মদ। ২০০৩ সালে তিনি অবসরে যাওয়ার পর ২০১৮ সালে আবারও রাজনীতিতে ফিরে আসেন। গত বছরের মে মাসে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে মাহাথির ‘পাকাতান হারাপান’ জোটের প্রধান হিসেবে নির্বাচনে জয় লাভ করে বিশ্বের সবচেয়ে বেশি বয়স্ক প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্বভার গ্রহণ করেন।

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *