192751

সন্তানকে সকল প্রকার অনিষ্ট থেকে রক্ষা রাখতে চান, এই দোয়াটি পড়ুন !!

সবার কাছেই সব থেকে প্রিয় হচ্ছে তার সন্তান। সন্তান যেন ভালো থাকেন সেই জন্য মা-বাবা কত কিছুই না করে থাকেন। মা-বাবার যদি সাধ্য থাকতো তাহলে তারা নিজের সন্তানকে আকাশ থেকে চাঁদটাও এনে দিতেন। সন্তান যখন ছোট থাকে তখন মা-বাবার চিন্তাও বেশি থাকে। এই বুঝি সন্তানের কিছু হয়ে গেল। মা-বাবাকে এই চিন্তা থেকে মুক্তি দেওয়ার জন্য আমাদের নবী (সা.) অনেক আগেই পথ দেখিয়ে গেছেন। বিভিন্ন হাদিসে তিনি বলেছেন কীভাবে একজন সন্তান সকল প্রকার অনিষ্ট থেকে বেঁচে থাকতে পারবে।

১. সুরক্ষার জন্য দোয়া : এই দোয়াটি আমাদে নবী (সা.) হাসান ও হোসেন (রা.) জন্য পড়তেন। তারা যেন সকল প্রকার খারাপ থেকে বেঁচে থাকতে পারেন।

উচ্চারণ: উয়িদু কুমা বি কালিমাতিল্লাহিত্তাম্মাতি মিন কুল্লি শায়তানিন ওয়া হাম্মাতিন ওয়া মিন কুল্লি আইনিন লাম্মাহ।

অর্থ : আমি আশ্রায় প্রার্থনা করছি সকল প্রকার শয়তান থেকে। এবং আমি আশ্রয় প্রার্থনা করছি সকল খারাপ চোখ থেকে। (আল বুখারী ৪/১১৯)

প্রত্যেক দিন সকালে ও সন্ধ্যায় বাসার বাহিরে যাওয়ার আগে আপনার সন্তানের উপর এই দোয়া পড়তে হবে।

২. কুরআনের শেষ তিনটি সুরা পড়ে দম করুন : সূরা আল-ইখলাস, সূরা আল-ফালাক এবং সূরা আন-নাস এই সুরাগুলো পড়ে আপনার সন্তানের উপর দম করুন। আশা করা যায় তারা সকল প্রকার খারাপ থেকে রক্ষা পাবে।

একটি হাদিসে এসেছে, হযরত আয়েশা (রা.) থেকে বর্ণিত তিনি বলেছেন, রাসূলুল্লাহ (সা.) প্রতি রাত্রে যখন ঘুমানোর প্রস্তুতি নিতেন তখন তিনি দুই হাত একত্রিত করতেন এবং সুরা ইখলাস, সুরা ফালাক এবং সুরা নাস পড়তেন অতঃপর হাতে দম করতেন এবং দুই হাত দিয়ে পুুরো শরীর মাহেস করতেন। এই কাজটি তিনি তিনবার করতেন (বুখারী)।

৩.আয়াতুল কদসী পড়ে দম করুন : হাদিসে আয়াতুল কুদসীর অনেক ফযীলত হসেছে। প্রতিদিন সকাল ও সন্ধ্যায় আয়াতুল কুদসী পড়ে আপনার সন্তানের উপর দম করুন। আশা করা যায় আপনার সন্তান সকল প্রকার খারাপ থেকে বেঁচে থাকবে।

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *