185982

১৪ মাস কোমায় থাকার পর মৃত্যুর কাছে হার মানলেন জনপ্রিয় অভিনেতা

অসংখ্য সিনেমায় অভিনয় করে দর্শক মাতিয়েছেন নীরাজ ভোরা। গত বছর ২০১৬ সালে ব্রেন স্ট্রোক হয় অভিনেতার। চিকিৎসা চলাকালীন কোমায় চলে যান। ১৪টি মাস মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করার পর পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে বিদায় নিলেন ‘বোল বচ্চন’ অভিনেতা। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫৪ বছর। আজ বৃহস্পতিবার সকালে সাংবাদিক সম্মেলনে খবরটি জানান পরিচালক অশোক পন্ডিত। তার মৃত্যুতে শোকাহত গোটা বলিউড।

অভিনেতা প্রথমে দিল্লির একটি হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। প্রথমে তাকে ভেন্টিলেটরে রাখা হয়। পরে অবস্থার কিছুটা বদল হলে তাকে মুম্বাইয়ে নিয়ে আসেন প্রযোজক বন্ধু ফিরোজ নাদিয়াদওয়ালা। নিজের বাড়ির একটি ঘরে নীরজের থাকার ব্যবস্থা করেন। ২৪ ঘণ্টা পর্যবেক্ষণে রাখতে একজন নার্স ও ওয়ার্ড বয় রাখেন। সেই ঘরেই ফিজিওথেরাপিস্ট, নিউরো সার্জেন, জেনেরাল ফিজিসিয়ানরা এসে চিকিৎসা করে যান। কিন্তু শেষ রক্ষা হল না। কোমায় থাকা মানুষটাকে আর ফেরানো গেল না।

নীরজের মৃত্যুতে ফিরাজ বলেন, ‘আমার ভাইকে বাঁচাতে পারলাম না। এটা আমার সারাজীবনের আক্ষেপ থেকে যাবে।’ এছাড়া অভিনেতার প্রয়াণে শোকপ্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি সহ বলিউডের একাধিক তারকা। তার মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে সিনেমা জগতে।

কমেডি অভিনেতা হিসেবে পরিচিত নীরজ লিখেছিলেন ‘হেরা ফেরি’ সিনেমার চিত্রনাট্য। তার পরিচালনায় তৈরি হয়েছিল ‘ফির হেরা ফেরি’। আমির খানের ছবি ‘রঙ্গিলা’র সংলাপ লিখেছিলেন নীরজ। ২০১৫ সালে ‘ওয়েলকাম ব্যাক’ সিনেমায় শেষ দেখা গিয়েছিল তাকে। রোহিত শেঠির ‘গোলমাল’ সিনেমার পাশাপাশি ‘বোল বচ্চন’, ‘ধাড়কান’, ‘পুকার’, ‘রঙ্গিলা’ সহ একাধিক ছবিতে কাজ করেছিলেন নীরজ। আজ বিকেল তিনটায় শেষকৃত্য সম্পন্ন হবে অভিনেতার। কয়েক বছর আগে মারা যান নীরজের স্ত্রী। তাদের কোনও সন্তান ছিল না।
সূত্র: হিন্দুস্তান টাইমস

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *