350218

‘ট্যাকটিক্যাল বেল্ট’ পরে ডিউটি শুরু পুলিশের

‘ট্যাকটিক্যাল বেল্ট’ পরে দায়িত্ব পালন শুরু করেছেন পুলিশ সদস্যরা। ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসের দিন থেকে অত্যাধুনিক এ বেল্ট পরে কাজ শুরু করেন ডিএমপি ও সিএমপির পুলিশ সদস্যরা।

প্রাথমিকভাবে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশে (ডিএমপি) ৭ হাজার এবং চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশে (সিএমপিতে) ৩ হাজার ট্যাকটিক্যাল বেল্ট দেয়া হয়েছে। ঢাকা ও চট্টগ্রাম মহানগরীর বিভিন্ন স্থানে পুলিশ সদস্যদেরকে এ বেল্ট পরে দায়িত্ব পালন করতে দেখা গেছে।

ডিএমপির রমনা বিভাগে ১২২ জন পুলিশ সদস্য পেয়েছেন অত্যাধুনিক এ বেল্ট। এ নিয়ে কথা হয় রমনা বিভাগের উপপুলিশ কমিশনার মো. সাজ্জাদুর রহমানের সঙ্গে।

তিনি যুগান্তরকে বলেন, ট্যাকটিক্যাল বেল্ট পেয়ে পুলিশ সদস্যরা খুশি। তবে দীর্ঘদিনের অভ্যাসের একটি বিষয় তো থাকেই। আস্তে আস্তে তারা এতে অভ্যস্ত হয়ে যাবে। দায়িত্ব পালনে প্রয়োজনীয় সরঞ্জামাদি একসঙ্গে থাকায় কাজ করাও সহজ হবে।

ট্যাকটিক্যাল বেল্টের সঙ্গে থাই হোলস্টার যুক্ত করে সেখানে স্মল আর্মস রাখার ব্যবস্থা করা হয়েছে। এছাড়া বেল্টের সঙ্গে এক্সপ্যান্ডেবল ব্যাটন, টর্চলাইট, হ্যান্ডকাফ ও পানির বোতল রাখার সুযোগ রয়েছে। জরুরি মুহূর্তে দ্রুত মেসেজ আদানপ্রদান নিশ্চিত করতে ওয়্যারলেস সেটের সঙ্গে একটি মাইক্রোফোন জুড়ে দেয়া হয়েছে।

এতে দায়িত্ব পালনকালে পুলিশ সদস্যরা সেট মুখের কাছে না এনেই মেসেজ আদান-প্রদান করতে পারবেন। নতুন এই অপারেশন গিয়ার চালু করায় পুলিশ সদস্যদের আগের মতো কাঁধে বা হাতে করে অস্ত্র বহন করতে হবে না। হাত ফাঁকা থাকায় জনগণের যে কোনো প্রয়োজনে দুই হাত ব্যবহার করেই সহযোগিতার জন্য এগিয়ে যেতে পারবেন পুলিশ সদস্যরা।

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *