354658

অবৈধ বাংলাদেশিদের ফেরত পাঠাবে না সৌদি আরব

প্রবাস ডেস্ক।। বিভিন্ন কারণে যেসব বাংলাদেশি অবৈধভাবে সৌদি আরবে অবস্থান করছেন, তাদের জোর করে ফেরত পাঠাবে না সে দেশের সরকার বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম।

সৌদি আরবে সা¤প্রতিক সফর উপলক্ষে গতকাল বুধবার এক ব্রিফিংয়ে তিনি এ তথ্য জানান। পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘সৌদি পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আদেল আল-জুবায়েরের সঙ্গে আমার প্রায় তিন ঘণ্টা বৈঠক হয়েছে। বৈধ ও অবৈধ সব বাংলাদেশিকে কোভিড পরিস্থিতির সময়ে চিকিৎসা সেবা প্রদান করায় আমি তাকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানিয়েছি।’

শাহরিয়ার আলম বলেন, ‘ভিসার মেয়াদের বাইরে অবস্থান করার জন্য বা অন্য কারণে যারা অবৈধভাবে সৌদি আরবে রয়েছেন, তারা যেন চিকিৎসা সেবা ও কাজ করতে পারেন, সে বিষয়ে সৌদি কর্তৃপক্ষ আশ্বস্ত করেছে।’
অবৈধদের জোর করে ফেরত পাঠাবে না সৌদি আরব জানিয়ে তিনি বলেন, ‘তবে আমাদের একটি চ্যালেঞ্জ— কিছু জায়গায় পাঁচ বছর মেয়াদি নতুন এমআরপি পাসপোর্ট দিতে সময় লাগছে। ওইসব জায়গায় বর্তমান পাসপোর্টের মেয়াদ এক বছর বাড়িয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। শুধু তা-ই না, এর জন্য যে সরকারি ফি নির্ধারিত ছিল, সেটিও মওকুফ করেছে বাংলাদেশ সরকার।’

এক বছর পাসপোর্টের মেয়াদ বাড়িয়ে দেওয়ার কারণে অবৈধদের অন্য কাজের সুযোগ করে দেওয়ার ক্ষেত্র তৈরি হবে বলে তিনি জানান।

সম্পর্কের রোডম্যাপ
শাহরিয়ার আলম বলেন, ‘বাংলাদেশ উন্নয়নশীল দেশে প্রবেশ করতে যাচ্ছে এবং আমাদের মাথাপিছু আয় এই অঞ্চলের অনেক দেশের থেকে বেশি।’

তিনি বলেন, ‘এই দুটি জিনিস মাথায় রেখে আমাদের দুই দেশের ভবিষ্যৎ সম্পর্ক কী হওয়া উচিত, সেটির জন্য একটি রোডম্যাপ তৈরি করবো আমরা।’

তিনি আরও বলেন,‘এক্ষেত্রে আমাদের গবেষণা সংস্থা বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ইন্টারন্যাশনাল এবং স্ট্র্যাটেজিক স্টাডিজ ও ফরেন সার্ভিস অ্যাকাডেমির সঙ্গে সৌদি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের গবেষণা সংস্থার সমন্বয়ে একটি গবেষণা হবে।’ তারা আমাদের জানাবেন— আমাদের ভবিষ্যৎ কর্মপন্থা কী হওয়া উচিত বলে তিনি জানান।
নিরাপত্তা সহযোগিতা ২০১৯ সালে সৌদি আরবের সশস্ত্র বাহিনীর প্রধান বাংলাদেশ সফরকালে আভাস দিয়েছিলেন কিছু সহযোগিতার বিষয়ে।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘এটি ইয়েমেনের সঙ্গে যুদ্ধের অংশ হিসেবে নয়। কুয়েত যুদ্ধের পর তাদের সীমান্ত এলাকায় এখন পর্যন্ত আমাদের সেনাবাহিনী দক্ষতার সঙ্গে মাইন অপসারণের কাজ করেছে।’
তিনি বলেন, ‘সেই অভিজ্ঞতার বিষয়ে সৌদি আরবের কিছু প্রয়োজন হতে পারে। আমি জানিয়ে এসেছি, সেই সহায়তার জন্য আমরা প্রস্তুত আছি। যখনই প্রয়োজন হবে আমরা সেটি করবো।’

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *