352999

চেয়ারম্যানের চেয়ার পোড়ালেন মেম্বার!

নিউজ ডেস্ক।। দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলায় এক ইউপি চেয়ারম্যানের বসার চেয়ারসহ গুরুতপূর্ণ কাগজ পুড়িয়ে দিয়েছেন ওই ইউনিয়নের বর্তমান ১ নম্বর ইউপি সদস্য সিরাজুল ইসলাম।

আজ শনিবার সকালে উপজেলার ২ নম্বর কাটলা ইউনিয়নে এই ঘটনা ঘটে। ওই ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান নাজির হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

স্থানীয়রা জানান, শনিবার সকাল ১০টার দিকে ওই ইউপি সদস্য সিরাজুল ইসলাম বাজারের ইউনিয়ন ভবনের ভেতর থেকে একটি চেয়ারসহ কিছু কাগজপত্র বের করে নিয়ে আসে। পরে তিন মাথা মোড়ে সাজ্জাদ ডাক্তারের ওষুধের দোকানের সামনে নিয়ে আগুন ধরিয়ে দেন।

জানতে চাইলে চেয়ারম্যান নাজির হোসেন কালের কণ্ঠকে বলেন, শনিবার সকালে তথ্য সেবাকেন্দ্রের সাখোয়াত হোসেন মাধ্যমে জানতে পারি ইউপি সদস্য সিরাজুল ইসলাম কাটলা বাজারের পুরাতন ইউনিয়ন ভবনের ভেতর থেকে সবার চেয়ার এবং সচিব সাহেবের ঘর থেকে রেজ্যুলেশন খাতাসহ গুরুত্বপূর্ণ কাগজ নিয়ে যায়। পরে বাজারের গোডাউন মোড় তিনমাথা এলাকায় চেয়ারের ওপর কাগজ রেখে আগুন ধরিয়ে দেয়। তিনি বলেন, অফিসের চেয়ার ছাড়াও লাঠি দিয়ে টেবিলের কাচ ভেঙে ফেলে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

আগুন দেওয়ার বিষয়টি স্বীকার করে ইউপি সদস্য সিরাজুল ইসলাম কালের কণ্ঠকে বলেন, দীর্ঘদিন থেকে পরিষদের বিভিন্নপ্রকার ভাতাসহ অনেক অনিয়ম করে আসছিল ইউপি চেয়ারম্যান নাজির হোসেন। কয়েক দিন আগে বিধবা ভাতার কার্ডগুলো কবজায় নিয়ে নিজের পছন্দের ব্যক্তিদের প্রদান করছিল। ভাতার কার্ডগুলো পরিষদের কোনো সদস্যের মনোনীত ব্যক্তিদের দেওয়া হচ্ছে না। তিনি বলেন, এমন অভিযোগে শনিবার সকালে ওই ভবন থেকে চেয়ার নিয়ে আগুন ধরিয়ে দিয়েছি।

বিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান মনির বলেন, সকালে এমন খবরে দ্রুত ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে পোড়ানো চেয়ারটি উদ্ধার করা পরিষদে রাখা হয়েছে। অভিযোগ পেলে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) পরিমল কুমার সরকার বলেন, আগুনের ঘটনায় থানার ওসিসহ ঘটনাস্থলে গিয়েছি। কি কারণে এমন ঘটনা ঘটিয়েছে বিষয়গুলো জানার জন্য পরিষদের সকল সদস্যদের উপজেলা পরিষদ অফিসকক্ষে ডাকা হয়েছে। বিস্তারিত জানার পরে বুঝা যাবে আসল ঘটনা কি। উৎস: কালের কণ্ঠ।

 

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *