350192

যে দেশে পুরুষের দুটি বিয়ে করা বাধ্যতামূলক, না করলে কারাদণ্ড!

বিয়ে নিয়ে পৃথিবীজুড়ে মানুষের নিয়ম-কাননের শেষ নেই। একেক দেশে একেক রীতি। তবে যাই হোক না কেন, বিয়েকে একটি পবিত্র সম্পর্ক হিসেবে বিবেচিত করা হয়। কিন্তু বিশ্বে বিয়ে নিয়ে এমন অনেক রীতিনীতি এবং ঐতিহ্য রয়েছে, যা শুনে লোকেরা হতবাক হয়ে যান।

বিশ্বে এমন একটি দেশ রয়েছে যেখানে দুটি বিয়ে করতে হয় এবং অস্বীকার করলে বরকে শাস্তি দেওয়া হয়। আপনি নিশ্চয়ই ভাবছেন যে রাজা-মহারাজা প্রাচীনকালে এই সমস্ত কাজ করতেন। অনেক বিবাহ করা তাদের সখ ছিল এবং রাজা-মহারাজা নিজের ইচ্ছেতেই বিবাহ করতেন। তবে এ দেশে পুরুষরা দু’জনকে বিয়ে করতে বাধ্য হয়।

ইরিত্রিয়া যা আফ্রিকা মহাদেশে অবস্থিত, এখানে প্রত্যেক পুরুষকে দুটি বিবাহ করতে হয় এবং দুটি স্ত্রী রাখার একটি অনন্য আইন রয়েছে। যদি কোনও পুরুষের দুটি স্ত্রী না থাকে তবে তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হয় এবং তার জেলও হতে পারে।

আসলে এ আইনটি তৈরি করার জন্য ইরিত্রিয়ার নিজস্ব কারণ রয়েছে। ইথিওপিয়ার সাথে গৃহযুদ্ধের কারণে সেখানে নারীর সংখ্যা পুরুষদের তুলনায় অনেক বেশি। সুতরাং, পুরুষদের জন্য দুটি বিবাহ করার জন্য একটি আইন করা হয়েছিল। এর সাথে সাথে নারীদের জন্যও একটি কঠোর আইন করা হয়েছিল, যার অধীনে নারীরা স্বামীদেরকে অন্য বিয়েতে বাধা দিতে বা আটকাতে পারে না। বিবাহতে বাধা দিলে নারীদের যাবজ্জীবন কারাদণ্ডও হতে পারে।

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *