298059

যেখানে সবার উপরে বাংলাদেশ, সবার শেষে অস্ট্রেলিয়া!

স্পোর্টস ডেস্কঃ অস্ট্রেলিয়া বিশ্বসেরা দল, বর্তমান বিশ্বচ্যাম্পিয়নও। দলীয় কিংবা ব্যক্তিগত রেকর্ড, সব দিক দিয়েই অস্ট্রেলিয়ান খেলোয়াড়রা এগিয়ে থাকবেন এটাই স্বাভাবিক। তবে একটা পরিসংখ্যান দেখলে যে কারও চোখ কপালে উঠবে। যে পরিসংখ্যানে সবার উপরে আছে বাংলাদেশ, আর অস্ট্রেলিয়ার অবস্থান? একদম তলানিতে।

বিশ্বকাপে অংশ নেবে দশ দল। এই দশ দলের প্রতিটির স্কোয়াডে আছেন ১৫ জন করে ক্রিকেটার। আর এই ১৫ জনের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ১২ বোলারের উইকেট আছে ভারতের। ১১ জন করে বোলারের উইকেট আছে বাংলাদেশ, পাকিস্তান, দক্ষিণ আফ্রিকা, শ্রীলঙ্কা ও নিউজিল্যান্ডের। আফগানিস্তান এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজের উইকেট আছে ১০ বোলারের। আর সবচেয়ে কম ৯ বোলারের উইকেট আছে বিশ্বকাপের স্বাগতিক ইংল্যান্ডের।

ভারতের সবচেয়ে বেশি ১২ বোলারের উইকেট থাকলেও উইকেট সংখ্যার দিক থেকে সবার চেয়ে এগিয়ে বাংলাদেশের বোলাররা। টাইগারদের ১১ বোলারের ওয়ানডেতে উইকেট সংখ্যা ৮৫৬ টি। তালিকার দ্বিতীয়তে থাকা শ্রীলঙ্কার বোলাররা নিয়েছেন ৮২৩ উইকেট। তৃতীয়তে রয়েছে ভারত, তাদের ১২ বোলার নিয়েছেন ৭৩৫ উইকেট। বিশ্বকাপে অংশ নেওয়া দলগুলোর মধ্যে সবচেয়ে কম ৪৯৩ উইকেট বর্তমান বিশ্বচ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়ার।

বিশ্বকাপে অংশ নেওয়া দশ দেশের বোলারদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি উইকেট শ্রীলঙ্কান লাসিথ মালিঙ্গার। ২১৮ ওয়ানডে ম্যাচ খেলে ৩২২ উইকেট শিকার করেছেন তিনি। এই তালিকার দ্বিতীয়তে রয়েছেন বাংলাদেশের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। ২০৯ ম্যাচে ওভার প্রতি ৪.৮২ গড়ে রান দিয়ে ২৬৫ উইকেট নিয়েছেন তিনি। তালিকার তিনেও আছেন আরেক বাংলাদেশি। ১৯৮ ম্যাচে ৪.৪৪ ইকোনমিতে ২৪৯ উইকেট নিয়ে বিশ্বকাপে অংশ নেওয়া ক্রিকেটারদের মধ্যে তৃতীয় সর্ব্বোচ্চ উইকেট সাকিব আল হাসানের।

বিশ্বকাপে বাংলাদেশই যে সবচেয়ে অভিজ্ঞ ও শক্ত বোলিং লাইন-আপ নিয়ে খেলতে যাচ্ছে, তা বলে দিচ্ছে এই পরিসংখ্যান। এখন দেখার টুর্নামেন্টে বাংলাদেশের বোলাররা কতটুকু কি করতে পারেন!

কোন দলের কত উইকেট:

বাংলাদেশ-১১ জন ৮৫৬ উইকেট
আফগানিস্তান-১০ জন ৬০৭
অস্ট্রেলিয়া- ৯ জন ৪৯৩ উইকেট
ইংল্যান্ড- ৯ জন ৬২০ উইকেট
ভারত-১২ জন ৭৩৫ উইকেট
নিউজিল্যান্ড-১১ জন ৬৬৭ উইকেট
পাকিস্তান-১২ জন ৬৬৬ উইকেট
দক্ষিণ আফ্রিকা-১১ জন ৭০২ উইকেট
শ্রীলঙ্কা-১০ জন ৫০১ উইকেট
ওয়েস্ট ইন্ডিজ- ১০ জন ৬১২

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *