ইরানের পরমাণুবিজ্ঞানী শাহরামের ‘ফাঁসি’

iran-amiri.ইরানের আলোচিত পরমাণুবিজ্ঞানী শাহরাম আমিরিকে ফাঁসিতে ঝোলানো হয়েছে। তাঁর পরিবার এমনটাই দাবি করেছে। আজ রোববার বিবিসি অনলাইনের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়।

শাহরাম ২০১০ সাল থেকে বন্দী ছিলেন। তাঁর মায়ের ভাষ্য, শাহরামের লাশ তাঁদের কাছে পাঠানো হয়েছে। তাঁর ঘাড়ের চারদিকে রশির দাগ আছে। এতে দৃশ্যমান হয়, তাঁকে ফাঁসিতে ঝোলানো হয়েছে। পরিবার জানিয়েছে, শাহরামের লাশ দাফন করা হয়েছে।

শাহরাম ২০০৯ সালে সৌদি আরবে পবিত্র হজ পালন করতে গিয়ে নিখোঁজ হন। পরে তিনি যুক্তরাষ্ট্রে আত্মপ্রকাশ করেন। তখন তিনি দাবি করেন, মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা সিআইএ তাঁকে অপহরণ করেছিল।

ঘটনা নিয়ে শাহরামের একাধিক বক্তব্যে সাংঘর্ষিক তথ্য পাওয়ার খবর বের হয়।

ওই সময় মার্কিন কর্মকর্তারা দাবি করেন, শাহরাম নিজ ইচ্ছায় যুক্তরাষ্ট্রে এসেছেন। তিনি যুক্তরাষ্ট্রকে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছেন। আবার নিজের ইচ্ছাতেই দেশে ফিরে যাচ্ছেন।

নানা নাটকীয়তার পর ২০১০ সালে দেশে ফেরেন শাহরাম। তাঁকে নায়কোচিত সংবর্ধনা দেওয়া হয়।

যুক্তরাষ্ট্র থেকে দেশে ফেরার পর শাহরামকে গোপন স্থানে বন্দী করে রাখা হয়। তাঁকে দীর্ঘমেয়াদি কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে বলে খবর বের হয়।

পরিবারের পক্ষ থেকে ওই সময় জানানো হয়, শাহরামকে বন্দী করা হয়েছে। তাঁর জীবন নিয়ে পরিবার শঙ্কিত।

ইরানের বিতর্কিত পারমাণবিক কর্মসূচির বিষয়ে শাহরামের ব্যাপক জানাশোনা ছিল বলে কথিত রয়েছে।

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *