লারা লোটাস এখনই বিয়ে করবেন না

Lara Lotusসাম্প্রতিক সময়ে লারা লোটাস করেছেন বেশকিছু কাজ। লারার অভিনয় সমাদৃত। সর্বশেষ অভিজিত মজুমদারের পরিচালনায় ‘বিভাবরী’ নাটকে অভিনয় করেছেন। নিজেকে জড়িয়েছেন শিক্ষকতা পেশায়। করছেন লেখালেখিও। লারার সাথে এসব বিষয়ে কথা বলেছেন মাহতাব হোসেন

লারা লোটাস। পুরোদস্তুর অভিনেত্রী। কিন্তু শুরুটা অভিনয় দিয়ে ছিল না। অভিনয়ের আগেই টেলিভিশন পর্দায় লারা’র মুখ দেখা যায়। তবে সেটা ভিন্ন কাজের জন্য। কি কাজ? ২০০২ সালের দিকের ঘটনা। লারা ও বড় বোন দুজনেই কাজ করতেন একুশে টিভিতে। তখন একুশে টেলিভিশন বেশ জনপ্রিয়। সারাদেশের মানুষ টেরিস্টোরিয়াল সম্প্রচারের কারণে একুশে টেলিভিশন দেখতে পায়। সেখানেই তিনি খবর পাঠ করতেন। মূলধারার খবর নয়, ঠিক মুক্ত খবরের মতোই একুশে অর্থনৈতিক নিউজ পরিক্রমায় দেখা যেত লারা লোটাসের মুখ। সেই মুখ এখন হয়তো অনেকেই মনে করতে পারবেন না। পারবেনই বা কিভাবে? তখন ছিলেন তিনি স্কুলের শিক্ষার্থী। আর এখন লারা লোটাস স্কুলের শিক্ষক।

সংবাদ পাঠিকা থেকে অভিনেত্রো আবার স্কুল শিক্ষক! কিভাবে? একুশে টিভিতে কাজ করার সময়েই লারার কাছে একটা এক ঘণ্টার নাটকের অফার আসে। কাজী ইলিয়াস কল্লোলের পরিচালনায় নাটকের নাম ‘বোধ।’ কিছু না ভেবেই করে ফেললেন অভিনয়। এরপরে অনিমেষ আইচের কুফা নাটকেও মূল চরিত্রে অভিনয় করেন।  তারপরে ‘চোর এসে বই পড়েছিল।’ যেন খুব দ্রুতই এগিয়ে যাওয়া হচ্ছিল। ফ্যাশন ডিজাইনে পড়ালেখা শেষ করে ফেলেছেন লারা। নিয়েছেন ভারত থেকেও ডিগ্রি। আর  এখন নরসিংদীর AKMIS ইন্টারন্যাশনাল স্কুলে শিক্ষকতা করছেন।

এসব শেষে কি নিয়ে ব্যস্ত আছেন? লারা বলেন, ‘এখন আমি স্কুলে বাচ্চাদের পড়ানো, অভিনয় আর লেখালেখি নিয়েই ব্যস্ত আছি।’ লেখালেখি? ‘হ্যাঁ আমি তো বেশকিছু এক ঘণ্টার টিভি নাটক লিখেছি। একটা মেগা লেখা শুরু করেছি।’

লেখালেখিতে কিভাবে? লারা বলেন, আম্মু প্রচুর লেখালেখি করে। আম্মুর লেখা দেখেই লেখা শুরু করি, তারচেয়েও বড় বিষয় লিখতে হলে পড়তে হয়। পড়ছিও, লিখছিও। বিয়ে কবে করছেন? এমন প্রশ্নের জবাবে লারা হেসে ওঠেন। বলেন, ‘বিয়ে খুব শিগগির করছি না। বিয়ে ব্যাপারটা তো আল্লাহর হাতে।’

ব্যস্ত লারাকে দেখা যায় কিছু ব্যস্ত কাজে। বেছে বেছে নাটক করেন। চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। করতেও চান তবে গল্প নির্ভর। আর যেহেতু খুব বেশী কাজ করছেন না সেহেতু ‘ভাল’ নির্বাচন করেই কাজ করবেন। আর লেখালেখি আর শিক্ষকতা দিয়ে তো বেশ সময় কেটে যাচ্ছে। সবাই তো অভিনেত্রী লারাকে চেনে? লারা বলেন, ‘অভিনেত্রী লারা হয়ে ওঠার গল্প তো পূর্বেই বলেছি তবে ২০০৭ সালে এনটিভির রমিজের আয়নার মাধ্যমেই আজকের লারা লোটাসকে মানুষ চেনে।’

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *