359318

টাকা নাকি আইন কার ক্ষমতা বেশি দেখতে চাই, বললেন গিয়াসউদ্দিন সেলিম

বিনোদন ডেস্ক: ‘পরীমনি একজন অভিনয়শিল্পী। তার চেয়েও বড় কথা তিনি একজন নারী। তার ওপর যা ঘটেছে সেটা অমানবিক। বর্বরোচিত। একজন শিল্পীকে এভাবে কেউ হয়রানি বা হুমকি দিতে পারেন না।

এখন টাকা নাকি আইন, কার ক্ষমতা বেশি দেখতে চাই।’ এভাবেই কথাগুলো বলছিলেন পরীমনি অভিনীত ‘স্বপ্নজাল’ চলচ্চিত্রের নির্মাতা গিয়াসউদ্দিন সেলিম। প্রথম আলো

তিনি আরও বলেন, একজন নারীকে এভাবে ‘রেপ এবং হত্যার চেষ্টা’ হুমকিকে বড় ধরনের অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা মনে করেন সেলিম। এমন ঘটনা মনে করিয়ে দেয়, সামাজিকভাবে দেশে আইনের শাসন টাকা বা ক্ষমতাসীনদের কাছে কুক্ষিগত হয়ে যাচ্ছে।

সেলিম বলেন, ‘বাংলাদেশে এই ধরনের ঘটনা এবারই প্রথম না। চলমান নারীর প্রতি সহিংসতা, হত্যা হুমকি কিংবা আত্মহত্যার প্ররোচনা দেওয়ায় এই ভঙ্গিতে আমরা স্পষ্ট দেখতে পাচ্ছি, এটা টাকার গরমে হচ্ছে। পুরো জাতি এবং নারীর প্রতি এই সহিংসতা দিন দিন বাড়ছে। এটাকে বাড়তে দেওয়া যাবে না।’

গতকাল পরীমনির ফেসবুক পোস্ট থেকে ঘটনাটা জানতে পারেন গিয়াসউদ্দিন সেলিম। তিনি মনে করেন, ‘অভিনয়শিল্পী হিসেবে পরীমনির আলাদা একটা বিচার পাওয়ার অধিকার ছিল। কিন্তু বিচারের জন্য চার দিন তাকে দ্বারে দ্বারে ঘুরতে হয়েছে। বিচার চাইতে গিয়ে তাকে হয়রানির শিকার হতে হয়েছে। একজন নারীকে নানাভাবে হেয় করাই বলে দেয়, সমাজটাকে কিছু মানুষ স্বার্থ হাসিলে ব্যবহার করতে চান।’

সেলিম বলেন, ‘শুনলাম তাকে (পরীমনি) নাকি মৃত্যুর হুমকি দেওয়া হচ্ছে। সে বাসায়ও নিরাপদ না। এটা আমাকে বাক্‌রুদ্ধ করেছে। এত ক্ষমতা মানুষের কোথা থেকে আসে, আমার বোধগম্য হয় না। যে এই কাণ্ড ঘটিয়েছে তাকে মানুষ বলা যায় না। আমরা যেভাবে সমাজে নারীর প্রতি সহিংসতার ধারাবাহিকতা দেখছি, এতে বারবার একই কথা মনে হচ্ছে, টাকা দিয়ে কেউ কেউ আইনকেও কিনতে চায়।’

পরীমনির ওপর নির্যাতনের ঘটনায় দৃষ্টান্তমূলক বিচার জরুরি মনে করেন গিয়াসউদ্দিন সেলিম। এ ছাড়া নারীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে উল্লেখ করে সেলিম আরও বলেন, ‘শুনেছি মামলা নিয়েছে। এখন বিচার যদি হয় তাহলে মানুষ বুঝতে পারবে টাকা না ক্ষমতা, কার ক্ষমতা বেশি? আমি এই ঘটনার সুষ্ঠু বিচার দাবি করছি।’

২০১৮ সালে মুক্তি পায় গিয়াসউদ্দিন সেলিম পরিচালিত সিনেমা ‘স্বপ্নজাল’। সিনেমার প্রধান চরিত্রে অভিনেত্রী হিসেবে অভিনয় করেন পরীমনি। সিনেমাটি বেশি প্রশংসিত হয়।

 

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *