359274

পরীমণিকে ধর্ষণচেষ্টায় নাসির-অমিসহ আটক ৫

নিউজ ডেস্ক।। অভিনেত্রী পরীমণিকে ধর্ষণচেষ্টা ও হত্যাচেষ্টার মামলায় প্রধান আসামি নাসির উদ্দিন মাহমুদসহ পাঁচজনকে আটক করেছে গোয়েন্দা পুলিশ।

আজ সোমবার দুপুরে রাজধানীর উত্তরার বাসা থেকে অভিযান চালিয়ে নাসির উদ্দিনকে আটক করা হয়। এ সময় তার বাসা থেকে মদ উদ্ধার করা হয়। ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার হারুন অর রশিদ গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানান।

এর আগে ধর্ষণচেষ্টা ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগে সোমবার বেলা ১১টার দিকে সাভার থানায় নাসির উদ্দিনসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেন পরীমণি। সাভার মডেল থানার পরিদর্শক (ওসি) কাজী মাইনুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। এতে নাসির উদ্দিন ও তার বন্ধু অমির নাম উল্লেখ করে আরও চারজনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে। এর আগে সকালে রূপনগর থানার মাধ্যমে লিখিত অভিযোগ করেন পরীমণি।

ওসি কাজী মাইনুল ইসলাম বলেন,পরীমণি নিজে বাদী হয়ে মোট ছয়জনের নামে এ মামলা করেছেন। মামলা নম্বর- ৩৮।

গতকাল রোববার রাতে প্রথমে নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে একটি স্ট্যাটাসে ধর্ষণচেষ্টা ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ তুলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে বিচার চান পরীমণি।

ফেসবুক পেজে পরীমণি লেখেন, ‘বরাবর, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আমি পরীমণি। এই দেশের একজন বাধ্যগত নাগরিক। আমার পেশা চলচ্চিত্র। আমি শারীরিক নির্যাতনের শিকার হয়েছি। আমাকে রেপ এবং হত্যা করার চেষ্টা করা হয়েছে। আমি এর বিচার চাই।’

পরে রাত সাড়ে ১০টার দিকে বনানীর নিজ বাসায় এ ব্যাপারে সংবাদ সম্মেলন করেন। এ সময় নাসির উদ্দিন মাহমুদ নামে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ করেন তিনি। এ ঘটনার সঠিক বিচার দাবি করেছেন এই চিত্রনায়িকা।

সংবাদ সম্মেলনে পরীমণি বলেন, ‘বুধবার রাতে উত্তরার বোট ক্লাবে ঘটনাটি ঘটে। নাসির উদ্দিন নামে একজন তাকে নেশাজাতীয় কিছু খাইয়ে এ ঘটনা ঘটাতে চেয়েছিলেন।’ সাংবাদিকরা নাসির উদ্দিন মাহমুদের পরিচয় জানতে চাইলে পরীমনি বলেন, ‘সে পরিচয় দিছে সে নাকি বেনজীর আহমেদ’র (পুলিশ মহাপরিদর্শক) বন্ধু ভাই, কাছের মানুষ। সে বারবার এটাও আমাকে বলছিল, যখন আমাকে গায়ে হাত তুলছিল…।’

পরীমণি বলেন, ‘আমার সাথে যা হয়েছে আমি এর বিচার চাই। আমি সুইসাইড করার মতো মেয়ে নই। কিন্তু কোনো কারণে আমি যদি মারা যাই, ধরে নেবেন আমাকে মারা হয়েছে।’ এই অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে মামলা করবেন কিনা- এমন প্রশ্নের জবাবে পরীমণি বলেন, ‘কে নেবে মামলা, আমার মামলা কে নেবে? তাকে কেউ এ ব্যাপারে হুমকি দিচ্ছে কিনা- জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আমার কোনো সিকিউরিটি নেই। আমি ভয় পাচ্ছি।’

 

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *