186308

স্মৃতিসৌধে লাখো মানুষের ঢল

আজ ১৬ ডিসেম্বর। শ্রদ্ধা ও ভালবাসায় জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের স্মরণ করেছে সর্বস্তরের মানুষ। বীর শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে শনিবার ভোর থেকেই সাভারের স্মৃতিসৌধে লাখো মানুষের ঢল নেমেছে।

পূব আকাশে সূর্য উঁকি দেওয়ার পর সকাল ৬টা ৩৫ মিনিটে সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে ফুল দিয়ে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এসময় কিছুক্ষণ নিরবে দাঁড়িয়ে শহীদদের স্মরণ করেন তারা। এর আগে রীতি অনুযায়ী প্যারেড গ্রাউন্ডে ৩১ বার তোপধ্বনির মধ্য দিয়ে শুরু হয় বিজয় দিবসের আনুষ্ঠানিকতা।

মুক্তিযুদ্ধে যে ৩০ লাখ স্বাধীনতাকামী বাঙালি তাদের জীবন উৎসর্গ করেছেন সেই সকল শ্রেষ্ঠ সন্তানদের স্মরণে ঢাকা মহানগরী থেকে ৩৩ কিলোমিটার উত্তর-পশ্চিমে সাভারের নবীনগরে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের পাশে ১০৮ একর জমির ওপর নির্মাণ করা হয় জাতীয় স্মৃতিসৌধ। এই স্মৃতিসৌধ আপামর জনসাধারণের বীরত্বপূর্ণ লড়াইয়ের স্মরণে নিবেদিত এবং শহীদদের প্রতি কৃতজ্ঞতাপাশে আবদ্ধ জাতির শ্রদ্ধার্ঘের উজ্জ্বল নিদর্শন স্বরূপ।

রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী স্মৃতিসৌধ এলাকা ত্যাগ করার পর সর্বসাধারণের জন্য খুলে দেওয়া হয় জাতীয় স্মৃতিসৌধের প্রধান ফটক। প্রধান ফটক খুলে দেয়ার পর বাধ ভাঙা জনতার ঢল নামে স্মৃতিসৌধে। সবার হাতে ফুল আর লাল-সবুজ পতাকা। কারও হাতে বিভিন্ন স্লোগান লেখা ব্যানার-ফেস্টুন। বিজয়ের উচ্ছ্বাসে উদ্ভাসিত সূর্যের মতো আলোকিত করে লাখো মানুষ জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের।

আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি, জাসদ, সিপিবি, ওয়ার্কার্স পার্টি, গণফোরামসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল ঢাকা বিশ্বিবিদ্যালয়, বাংলা একাডেমি, শিল্পকলা একাডেমি, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি, বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটসহ রাজধানীর বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠন ও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে দিবসটি উদযাপন করছে।

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *