185470

ধর্ষণের পর লজ্জাস্থানে…

পাঁচ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণ করে তার লজ্জাস্থানে লাঠি ঢুকিয়ে হত্যা করার ঘটনার সাক্ষী রইলো ভারতের হরিয়ানার হিসার। রবিবার সকালে সেই শিশুটির বাড়ির অদূরেই তার রক্তাক্ত দেহ উদ্ধার হয়।

শিশুটির মা পুলিশকে জানিয়েছেন, শনিবার রাত ৯টায় মেয়েকে পাশে নিয়ে ঘুমোচ্ছিলেন। রবিবার সকাল হতেই দেখেন বিছানায় মেয়ে নেই। আশপাশে খোঁজখবর নেন। তারপরই দেখা যায় বাড়ি থেকে কিছুটা দূরে মেয়ের নিথর দেহ পড়ে রয়েছে।

শিশুটির বাবা জানান, মেয়েটির যৌনাঙ্গে লাঠি ঢুকিয়ে দেওয়া হয়। মুখ দিয়ে রক্ত বেরিয়ে এসেছিল। শুধু তাই নয়, দেহের চারপাশে রক্ত পড়ে ছিল।

ঘটনাটি প্রকাশ্যে আসতেই গ্রামবাসীরা ক্ষোভে ফেটে পড়েন। অভিযুক্তকে দ্রুত গ্রেফতারের দাবি তোলেন তারা।

ঘটনাস্থলে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। শিশুটির দেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়। উকলানা থানায় এ বিষয়ে একটি মামলা রুজু করা হয়।

পুলিশ জানিয়েছে, ফরেন্সিক দল ও ডগ স্কোয়াড ঘটনাস্থল পরীক্ষা করেছে। ধর্ষণ হয়েছে কি না ময়নাতদন্তের রিপোর্ট হাতে আসার পরই স্পষ্ট হবে।

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *